কম্বিনেশন চূড়ান্ত জেমির!

|

অনুশীলন শেষ করে মাঠ থেকে বের হওয়ার অপেক্ষায় সবাই। হঠাৎই বিপুল আহমেদকে জড়িয়ে ধরে সবুজ ঘাসের ওপর ফেলে দেন অধিনায়ক জামাল ভূইয়া। এরপর তার সারা শরীরে চুন ঢেলে উচ্ছ্বাস করতে থাকেন মোহাম্মদ ইব্রাহিম-মানিক হোসেন মোল্লারা।

বুধবার ছিল বসুন্ধরা কিংসের মিডফিল্ডার বিপুলের ২২তম জন্মদিন। বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে সতীর্থের এই জন্মদিনে যেভাবে আনন্দ করেছেন, নেপালের বিপক্ষেও দুটি প্রীতি ফুটবল ম্যাচে তা করতে চান জামালরা। আগামীকাল বিকেল ৫টায় বঙ্গবন্ধুতে নেপালের বিপক্ষে প্রথম প্রস্তুতি ম্যাচে মুখোমুখি হবে বাংলাদেশ। বুধবার অনুশীলনের পুরোটা সময়ই ম্যাচ খেলিয়েছেন কোচ জেমি ডে। তখনই বেস্ট ইলেভেনও চূড়ান্ত করে ফেলেছেন ব্রিটিশ এ কোচ। কাকে কোন পজিশনে খেলাবেন, সেই কম্বিনেশনও অনেকটা চূড়ান্ত জেমির।

এতদিন অনুশীলনে ফিটনেসের ওপর বেশি জোর দিয়েছিলেন কোচিং স্টাফরা। কিন্তু হিমালয়ের দেশটির বিপক্ষে ফুটবল লড়াই শুরু হতে মাত্র একদিন বাকি বলেই ম্যাচ ফিটনেসের ওপর জোর দেন জেমি। এদিন দু’ভাগে বিভক্ত করে ফুটবলারদের অনুশীলন করিয়েছেন। আর নেপালের বিপক্ষে যাদের খেলাবেন গোলরক্ষক ছাড়া বাকি ১০ জনকে নিয়ে একাই অনুশীলন করিয়েছেন জেমি। ম্যাচ খেলিয়ে তাদের অবস্থানটা বোঝার চেষ্টা করেছেন তিনি।

জেমির সেরা একাদশে গোলপোস্টে আশরাফুল ইসলাম রানা এক প্রকার নিশ্চিত। অনুশীলনে বুধবার তার যে কম্বিনেশন দেখা গেছে, তাতে রক্ষণে তপু বর্মণ, বিশ্বনাথ ঘোষ ও রহমত মিয়া। মধ্য মাঠে রিয়াদুল হাসান রাফি, জামাল ভূইয়া, মোহাম্মদ ইব্রাহিম এবং মানিক হোসেন মোল্লাকে খেলিয়েছেন। অ্যাটাকিং লাইনে সামনে রেখেছেন নাবীব নেওয়াজ জীবনকে। তার পেছনে মোহাম্মদ সাদ উদ্দিন এবং সুমন রেজাকে। নেপালের বিপক্ষে ম্যাচে চমক হিসেবে দেখা যেতে পারে উত্তর বারিধারার সুমন রেজাকে। তরুণ এ ফরোয়ার্ডকে নিয়ে এর আগে নিজের উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেছিলেন কোচ জেমি ডে।

করোনাভাইরাসের কারণে দীর্ঘ সাত মাস পর ফুটবলে ফেরায় অনেকেরই ফিটনেস নিয়ে শঙ্কা দেখা দিয়েছে। তাই যার ফিটনেস লেভেলটা ভালো, হোক না সে নতুন, তাকেই চূড়ান্ত করবেন জেমি- এমনটাই বলেছেন সাইফ স্পোর্টিং ক্লাবের রহমত মিয়া, ‘বেস্ট ইলেভেনটা পুরোটাই কোচিং স্টাফের ওপর। এখানে সবাই সেরা। সেরা একাদশে যে কেউ আসতে পারে। নতুন হোক, পুরোনো হোক- এটা কোনো ব্যাপার না।’ অনুশীলন শেষে ডিফেন্ডার তপু বর্মণেরও মনে হয়েছে সেরা একাদশ সাজিয়ে ফেলেছেন জেমি।

‘আমার মনে হয়, কোচ তার কম্বিনেশন ঠিক করে ফেলেছেন। এক দিন পর ম্যাচ এটা তো করাই উচিত। অবশ্যই তার মাথায় একটা একাদশ তো আছে। সেটা নিয়ে আজ (গতকাল) কাজ করেছে সে।’ সেরা একাদশের একটা ধারণা নেওয়ার কথা বলেছেন কোচ জেমিও, ‘চূড়ান্ত একাদশ নিয়ে একটা স্পষ্ট ধারণা আমি নিয়ে নিয়েছি। তবে কাকে খেলাব, সেটা ম্যাচের দিনই দেখতে পারবেন।’ জেমি নামের তালিকা না বললেও বুধবার অনুশীলনেই দেখা গেছে তার বেস্ট ইলেভেনে থাকছেন কারা।








Leave a reply