বাড়ির পাশ দিয়ে রাস্তা তৈরির মানসিকতা বাদ দেওয়ার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর

|

বাড়ির পাশ দিয়ে রাস্তা নির্মাণের মান সিকতা পরিহার করে জমি সুরক্ষার আহ্বান জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তিনি বলেছেন, কারো বাড়ির পাশ দিয়ে রাস্তা নিয়ে যাওয়ার জন্য বেশি সড়ক নির্মাণ করা যাবে না। বেশি রাস্তা নির্মাণ করলে পানি চলাচল বাধাগ্রস্ত হয়।

আজ মঙ্গলবার জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটির (একনেক) সভায় এ কথা বলেন প্রধান মন্ত্রী। সভা শেষে পরিকল্পনা মন্ত্রী এম এ মান্নান সাংবাদিকদের প্রধানমন্ত্রীর আহ্বান ও সভার প্রকল্প সম্পর্কেও ব্রিফ করেন।

একনেক সম্মেলন কক্ষে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়। প্রধানমন্ত্রী অনলাইনে এ সভায় সভাপতিত্ব করেন। সভায় এক হাজার ২৬৬ কোটি ১৩ লাখ টাকা খরচে পাঁচটি প্রকল্প অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। এতে সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রণালয়ের ‘জামালপুর জেলার দিগপাইত-সরিষাবাড়ি-তারাকান্দি সড়ক যথাযথ মান ও প্রশস্ততায় উন্নীত করণ’ প্রকল্প রয়েছে।

এ প্রকল্প বাস্তবায়নে খরচ হবে ২৭৬ কোটি ৫৬ লাখ টাকা। প্রকল্পটি ২০২৩ সালের ডিসেম্বরের মধ্যে বাস্তবায়ন করা হবে। এ প্রকল্পের সার-সংক্ষেপের ওপর আলোচনা করতে গিয়ে প্রধানমন্ত্রী এসব কথা বলেন।

ব্রিফিংয়ে পরিকল্পনামন্ত্রী আরো বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, সড়ক নির্মাণ ভালো। সড়কগুলো রক্ষণাবেক্ষণ আরো ভালো। তবে নির্মাণ ও রক্ষণাবেক্ষণের ক্ষেত্রে একটা ভারসাম্য তৈরি করতে হবে। শুধু নির্মাণ করলে হবে না। আমাদের আর্থিক সক্ষমতা, টেকনিক্যাল সক্ষমতারও মাপজোখ রাখতে হবে।’

প্রধানমন্ত্রীর উদ্ধৃতি দিয়ে পরিকল্পনামন্ত্রী আরো বলেন, ‘সড়ক নির্মাণের ক্ষেত্রে খুব সচেতন হওয়ার তাগিদ দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী। সড়ক নির্মাণের পরিকল্পনা করার সময় আরো চিন্তা করতে হবে। যাতে সড়ক আমাদের যথাযথভাবে কাজে লাগে। অপ্রয়োজনীয় সড়ক নির্মাণ পরিহার করতে হবে। যেমন- আমার বাড়ির পাশ দিয়ে রাস্তা নিতে হবে, এই ধরনের মানসিকতা পরিহার করতে হবে আমাদের। জায়গা-জমি সুরক্ষা করতে হবে। তাছাড়া বেশি সড়ক নির্মাণ করলে পানি চলাচল বাধাগ্রস্ত হয়। এই সম্পর্কে তিনি আমাদের সাবধান হতে বলেছেন।








Leave a reply