এক ক্লিকে ৭০০ টি আয়ুর্বেদ ওষুধের বৈজ্ঞানিক বিবরণ

|

অনলাইনে ফার্মাকোপোইয়া তৈরি করতে চলেছে, আয়ুর্বেদিক ওষুধের মান উন্নত করতে। এক ক্লিকে পাওয়া যাবে ৭০০ টি ওষুধের বৈজ্ঞানিক বিবরণ। এর সাহায্যে ওষুধ প্রস্তুতকারীরা আয়ুর্বেদিক ওষুধের গাছপালা, তাদের উপস্থিত বিভিন্ন উপাদান এবং তাদের ব্যবহারের পরিমাণ সম্পর্কে বৈজ্ঞানিক তথ্য পাবেন। আয়ুর্বেদ ফার্মাকোপিয়ায় উপস্থিত প্রায় সাত শতাধিক ওষুধের বৈজ্ঞানিক বিবরণ অনলাইনে পাওয়া যাবে।

ভারতীয় মেডিসিন ও হোমিওপ্যাথির জন্য ফার্মাকোপোইয়া কমিশনের পরিচালক ডাক্তার কে সি আর রেড্ডি বলেছিলেন। এখন অবধি আয়ুর্বেদের ৪০০ একক ওষুধের ফার্মাকোপোইয়া ও একাধিক মালিকুল সহ প্রায় ৩০০ টি ওষুধ প্রস্তুত করা হয়েছে। এটি কেবলমাত্র নথি আকারে উপলভ্য ছিল তবে এখন সেগুলি অনলাইনে উপলব্ধ করা হচ্ছে। এই প্রথমবার সরকার অনলাইনে খাঁটি তথ্য আয়ুর্বেদ ওষুধ সম্পর্কে তথ্য সরবরাহ দিচ্ছে।

১৩ ই ডিসেম্বর গাজিয়াবাদের ফার্মাকোপোইয়া কমিশনে আয়োজিত কর্মসূচিতে কেন্দ্রীয় এইযুশ মন্ত্রী শ্রীপাদ ইয়েসো নায়েক এই সেবা শুরু করবেন। এটির সাহায্যে আয়ুর্বেদের ওষুধ প্রস্তুতকারী সংস্থাগুলি সঠিক বৈজ্ঞানিক তথ্য পেতে সক্ষম হবে। এবং তারা ফার্মাকোপিয়ার জ্ঞানের উপর ভিত্তি করে তাদের ওষুধের মান উন্নত করতে সক্ষম হবে।
তিনি বলেছিলেন যে, আয়ুর্বেদ ফার্মাকোপিয়ার তৈরির কাজ আরও এগিয়ে চলবে। আয়ুর্বেদে হাজার হাজার ওষুধ রয়েছে, তাই এই কাজ দীর্ঘস্থায়ী হবে। যেহেতু নতুন ওষুধগুলি বৈজ্ঞানিকভাবে প্রত্যয়িত, সেগুলি এই ওয়েবসাইটে আপডেট করা হবে।

আগে নিজেকে রক্ষা করুন, নিম্ন মানের বায়ু আপনার মুখের ক্ষতি করছে।
রেড্ডি বলেছিলেন, আয়ুর্বেদ ওষুধের মান সম্পর্কে এই উপলক্ষে একটি জাতীয় স্তরের সিম্পোজিয়ামও আয়োজন করা হচ্ছে। কেন্দ্রীয় আয়েশ সচিব রাজেশ কোঁচা এই সিম্পোজিয়ামের উদ্বোধন করবেন। এখানে আয়ুর্বেদ গবেষক, বিশেষজ্ঞ, ওষুধ প্রস্তুতকারীদের আমন্ত্রিত করা হয়েছে।এই সিম্পোজিয়ামের উদ্দেশ্য আয়ুর্বেদ ফার্মাকোপিয়ার বাস্তবায়ন সম্পর্কে বিভিন্ন দিক থেকে সচেতনতা তৈরি করা হবে সবাইকে ।








Leave a reply