প্রতিদিন কাঁচামরিচ খেলে মিলবে ১৮ সুফল

|

কাঁচামরিচ আমাদের অনেকের প্রতিদিনের খাবারের রুটিনে থাকে। মরিচ আমরা খাই শুধু আমাদের স্বাদের জন্য। কিন্তু জানেন কি, আমাদের ত্বকের বলিরেখা দূর করতে অথবা ক্যালরি বার্ন করতেও সহায়ক এই কাঁচা মরিচ? মরিচ ঝাল হয় এর মধ্যে থাকা ক্যাপসিসিন নামক উপাদানের কারণে। আর এই একই উপাদান শরীরের মেটাবলিজমের গতি বাড়িয়ে সহজে ওজন নিয়ন্ত্রণ করতে পারে। বাল্টিমোরে বায়োফিজিক্যাল সোসাইটির ৫৯তম বার্ষিক সম্মেলনে প্রকাশিত এক গবেষণা রিপোর্টে এ কথা বলা হয়েছে। ইয়াওমিং ইউনিভার্সিটির গবেষকদের মতে, মোটাসোটা মানুষের মেটাবলিজম বাড়িয়ে ওজন নিয়ন্ত্রনে আনতে ক্যাপসিসিন খুবই কার্যকর হতে পারে। ওজন নিয়ন্ত্রণের একটি হাতিয়ার হিসেবে ব্যবহার করতে পারেন ক্যাপসিসিন-এর এই গুণ। প্রতিদিনের খাদ্য তালিকায় একটি করে কাঁচামরিচ থাকলে আপনি সহজেই বেশ কিছু শারীরিক সমস্যাকে দূরে সরিয়ে রাখতে পারবেন। এবার জেনে নেওয়া যাক কাঁচামরিচ একাধিক উপকারিতা, যেগুলো হয়তো আমাদের অনেকেরই অজানা-

১. কাঁচামরিচয় আছে ভিটামিন এ যা হাড়, দাঁত ও মিউকাস মেমব্রেনকে ভালো রাখতে সহায়তা করে।

২. কাঁচামরিচয় প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন সি আছে যা মাড়ি ও চুলের সুরক্ষা করে।

৩. নিয়মিত কাঁচামরিচ খেলে স্নায়ুর বিভিন্ন সমস্যা কমে।

৪. কাঁচামরিচ ছেলেদের প্রোস্টেট ক্যান্সার ঝুঁকি কমায়।

৫. কাঁচামরিচ খাবার দ্রুত হজমে সহায়তা করে।

৬. কাঁচামরিচয় আছে ভিটামিন সি। তাই যে কোনও ধরণের কাটা-ছেড়া কিংবা ঘা শুকানোর জন্য কাঁচামরিচ খুবই উপকারী।

৭. গরমকালে কাঁচামরিচ খেলে ঘামের মাধ্যমে শরীর ঠাণ্ডা থাকে।

৮. এই গরমে হুটহাট করেই হয়ে যায় জ্বর, সর্দি, কাশি। কাঁচামরিচর অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট ও ভিটামিন সি শরীরকে জ্বর, সর্দি, কাশি ইত্যাদি থেকে রক্ষা করে।

৯. প্রতিদিন খাবার তালিকায় অন্তত একটি করে কাঁচামরিচ রাখলে ত্বকে সহজে বলিরেখা পড়ে না।

১০. প্রতিদিন একটি করে কাঁচামরিচ খেলে মস্তিষ্কে রক্ত জমাট বাধার ঝুঁকি কমে যায়।

১১. নিয়মিত কাঁচামরিচ খেলে হৃদপিণ্ডের বিভিন্ন সমস্যা কমে যায়।

১২. কাঁচামরিচ মেটাবলিসম বাড়িয়ে ক্যালোরি পোড়াতে সহায়তা করে।

১৩. কাঁচামরিচ রক্তের কোলেস্টেরল কমায়।

১৪. কাঁচামরিচয় প্রচুর পরিমাণে অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট বিটা ক্যারোটিন আছে যা কার্ডিওভাস্ক্যুলার সিস্টেমকে কর্মক্ষম রাখে।

১৫. নিয়মিত কাঁচামরিচ খেলে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ে।

১৬. কাঁচামরিচয় আছে অ্যান্টি অক্সিডেন্ট আর এই অ্যান্টি অক্সিডেন্ট আমাদের শরীরে প্রাকৃতিকভাবে ক্যান্সারের বিরুদ্ধে লড়তে সাহায্য করে।

১৭. কাঁচামরিচ খেলে আমাদের মস্তিষ্কে এনড্রোফিন নামক হরমনের নিঃসরণ ঘটে যা আমাদের মনকে চনমনে আর সতেজ রাখে।

১৮. নারীদের একটি সাধারণ সমস্যা হচ্ছে আয়রনের ঘাটতি। কাঁচামরিচ এই আয়রনের একটি অন্যতম প্রাকৃতিক উৎস।

সূত্র: জিনিউজ








Leave a reply